নন ফেসবুক ইউজার্সরাও পাবলিকলি চ্যাট করুন ফেসবুকে...

By: Madhuraka Dasgupta

নতুন নতুন আপডেট আর ফিচার্সের জন্য ইউজার্সদের কাছে দিন দিন আরও জনপ্রিয় হয়ে উঠছে ফেসবুক। ইউজার্সদের জন্য প্রায়ই নতুন নতুন পরিষেবা নিয়ে আসে এই সোশ্যাল মিডিয়া। তবে এবার আর শুধু ফেসবুক ইউজার্স নন, যাঁরা এই সোশ্যাল মিডিয়ার সঙ্গে যুক্ত নন তাঁরাও গ্রুপ চ্যাট করতে পারবেন এখানে।

নন ফেসবুক ইউজার্সরাও পাবলিকলি চ্যাট করুন ফেসবুকে...

ফেসবুক লাইভ ভিডিও এখন থেকে আরো মজার-জেনে নিন কিভাবে?

শুধু চ্যাটই নয়, ডিবেট বা কোনও ইভেন্টের পরিকল্পনাও এবার করতে পারবেন নন ফেসবুক ইউজার্স।

কীভাবে 'রুম' নামক ফিচারটি অন্য গ্রুপ চ্যাটের থেকে আলাদা?
   

কীভাবে 'রুম' নামক ফিচারটি অন্য গ্রুপ চ্যাটের থেকে আলাদা?

এই নতুন পরিষেবা চালু করার আগে ফেসবুক ব্যবহারকারী এবং যাঁরা ফেসবুকের সঙ্গে যুক্ত নন, তাঁদের উভয়ের কথাই মাথায় রেখেছে এই সোশ্যাল মিডিয়া।

ফেসবুক মেসেঞ্জার নামে যে অ্যাপটি রয়েছে, তার মধ্যেই 'রুম' নামক একটি নতুন ফিচার্স নিয়ে এসেছে তারা। এর মাধ্যমে যাঁরা ফেসবুক ব্যবহার করেন না, তাঁরা পাবলিক গ্রুপ চ্যাটে অংশ নিতে পারবেন।

দ্য ক্যুরিয়র মেলের রিপোর্ট অনুযায়ী, ফেসবুক মেসেঞ্জার রুম হল এমন একটি ফিচার্স, যাঁর মাধ্যমে আপনি ফেসবুকের সদস্য না হয়েও যে কোনও বিষয়ে, যে কারোর সঙ্গে পাবলিকলি চ্যাট করতে পারবেন। হতে পারেন তিনি আপনার আত্মীয়, বন্ধু কিংবা হতে পারেন সম্পূর্ণ অপরিচিত। এরফলে আপনি যেমন একদিকে অপরিচিত মানুষের সঙ্গে আপনার পছন্দের বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা করতে পারবেন, ঠিক তেমনই অংশ নিতে পারবেন কোনও ইভেন্টের আয়োজনেও।

নতুন স্মার্টফোন শ্রেষ্ঠ অনলাইন হত্যা জন্য এখানে ক্লিক করুন

'রুম' নামক নতুন এই ফিচারটি যথেষ্ট নিরাপদ
   

'রুম' নামক নতুন এই ফিচারটি যথেষ্ট নিরাপদ

অপরিচিতদের সঙ্গে পছন্দের বিষয় নিয়ে কথা বললেও এই নতুন পরিষেবাটি কিন্তু যথেষ্ট নিরাপদ। কারণ 'রুম' নামে এই পরিষেবাটিকে প্রাইভেট মোডে খা যাবে। এমনকি পাবলিক এই চ্যাট রুমে যোগ দেওয়া যাবে অ্যাডমিনিস্ট্রেটারের থেকে অ্যাপ্রুভাল পাওয়ার পরই। গ্রুপে যে কোনও ধরণের সন্দেহজনক চ্যাট বা কাজকর্ম হলে গ্রুপ অ্যাডমিন তার ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করতে পারবেন।

এই গ্রুপ থেকে নির্দিষ্ট ওই ব্যক্তিকে বের করে দেওয়া যাবে এবং তিনি ওই গ্রুপে আর জয়েন করতে পারবেন না। এমনকি ফেসবুক যদি মনে করে তাহলে যে কোনও পোস্ট ডিলিট করে দিতে পারে। এমনকি কোনও ব্যক্তিকে গ্রুপ থেকে বাদ দিয়ে পুনরায় সেই ব্যক্তির ওই গ্রুপে জয়েন করার ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা জারি করতে পারে। শুধু তাই নয়, গোটা চ্যাট রুমটিও ডিলিট করে দিতে পারে ফেসবুক।

 

কীভাবে 'রুম' নামক পাবলিক চ্যাট গ্রুপে যোগ দেবেন
   

কীভাবে 'রুম' নামক পাবলিক চ্যাট গ্রুপে যোগ দেবেন

'রুম' নামক পাবলিক চ্যাট গ্রুপে অংশ নিতে হলে আপনার ফেসবুক ইউজার্স হওয়ার প্রয়োজন নেই। এমনকি কোনও ইমেল আইডি না হলেও আপনি এই পাবলিক চ্যাট গ্রুপে যোগ দিতে পারবেন। কীভাবে? আসুন দেখে নেওয়া যাক। এই নতুন পরিষেবায় একটি QR-কোড ইনভাইট সিস্টেম থাকে। যিনি বা যাঁরা চ্যাট গ্রুপে অংশ নেবেন, তাঁকে ওই কোডের ছবি তুলে বা স্ক্রিনশট নিয়ে পাঠিয়ে দিতে হবে। প্রত্যেকটি রুমেই একটি করে লিঙ্ক থাকে যাতে ক্লিক করে করে আপনি ওই গ্রুপের আলোচনায় অংশ নিতে পারবেন।

 

এই পরিষেবা কীভাবে সাহায্য করে
   

এই পরিষেবা কীভাবে সাহায্য করে

সমমনোভাবাপন্ন মানুষের নিজেদের পছন্দের বিষয় নিয়ে কথা বলার জন্য আদর্শ হল এই পরিষেবা। এছাড়াও কোনও অনুষ্ঠানের আয়োজনের জন্য, কোনওধরণের
সোশ্যাল বা পলিটিকাল মুভমেন্টের জন্য 'রুম' পাবলিক চ্যাট গ্রুপটি খুবই উপযোগী।

মেসেঞ্জার অ্যাপের মাধ্যমে একজন ব্যক্তি তাঁর নিজস্ব চ্যাট 'রুম'ও তৈরি করতে পারেন। সেইসঙ্গে নতুন ব্যক্তিকে ইনভাইট করা, নতুন সদস্যকে গ্রুপে অ্যাপ্রুভ করা, নিজেদের চ্যাট গ্রুপের নিজস্ব নাম দেওয়া, নোটিফিকেশনের ব্যবস্থা করা - এই সমস্ত কিছুই করতে পারবেন একজন গ্রুপ অ্যাডমিন।

 

শীঘ্রই ভারতে আসতে চলেছে এই নতুন পরিষেবা
   

শীঘ্রই ভারতে আসতে চলেছে এই নতুন পরিষেবা

শুরুতে এক্সপেরিমেন্টের জন্য 'রুম' নামক এই পরিষেবাটি চালু করা হয়েছিল। তাই আপাতত শুধুমাত্র অষ্ট্রেলিয়া এবং কানাডায় বসবাসকারী ব্যক্তিরাই এই পরিষেবার সুবিধা নিতে পারছেন। তবে খুব শীঘ্রই ভারত তথা পৃথিবীর অন্যান্য দেশেও এই পরিষেবা চালু করা হবে।

নতুন স্মার্টফোন শ্রেষ্ঠ অনলাইন হত্যা জন্য এখানে ক্লিক করুন



Read more about:
English summary
Facebook rolls out a new feature, allowing you to chat with anyone on or outside facebook. Check it out.
Please Wait while comments are loading...

Social Counting